ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ৬ ফাল্গুন ১৪২৬


'পশ্চিমবঙ্গে এনআরসি হবে না'

১১:৩২এএম, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৯

আন্তর্জাতিক ডেস্ক : এনআরসিকে রাজনৈতিক হাতিয়ার করা হচ্ছে। অপপ্রচারে কান দেবেন না। আমি থাকতে পশ্চিমবঙ্গে এনআরসি হবে না। দিল্লি থেকে ফিরে এনআরসি নিয়ে এই মন্তব্য করেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি।

পশ্চিমবঙ্গে ভোটার তালিকা সংশোধন ও ডিজিটাল রেশন কার্ড নিয়ে এনআরসি গুজব ছড়িয়েছে। তবে এ নিয়ে রাজ্যবাসীর আতঙ্কিত হওয়ার কারণ নেই বলে স্পষ্ট জানিয়েছেন মমতা।

তিনি বলেন, কিছু অপপ্রচার চলছে। বাংলায় এনআরসি নিয়ে দিল্লিতে কথা হয়নি। রাজনৈতিক কারণে বাংলায় এনআরসি নিয়ে ভয় দেখাচ্ছে। উস্কানিমূলক কথা বলছে। এতে মানুষের হৃদয়ে দুঃখ লাগছে।

তার রাজ্যে এনআরসি হবে না বলেও পশ্চিমবঙ্গের মানুষদের আশ্বস্ত করেছেন মমতা। তিনি বলেন, বাংলার মানুষকে আশ্বস্ত করবো, কোনও এনআরসি হবে না এখানে। আমাকে বিশ্বাস করেন তো! এনআরসি নিয়ে রাজনৈতিক প্রচার করছে।

এটা রাজনীতির হাতিয়ার। বাংলায় প্রশ্নই আসে না। হবে না হবে হবে না। ভয় পেয়ে লাইনে দাঁড়ানো। ভয় পেয়ে শরীর খারাপ করা। চিন্তা করার কোনও কারণ নেই। ভোটার তালিকায় নাম রয়েছে। নিজের নামে জমি-বাড়ি আছে, আবার কী চাই?

ভোট দেওয়া মানে নাগরিক, এটাই তো আপনার সম্বল। এটা ডিজিটাল রেশন কার্ড। এটা সুযোগ দেয়া হচ্ছে। এটার সঙ্গে এনআরসি-র সম্পর্ক নেই। চিন্তার কারণ নেই। আপনাদের কারও গায়ে হাত দিতে গেলে মমতার গায়ে হাত দিতে হবে।

আপনাদের পাহারাদার ছিলাম, থাকবো। তবে ভোটার তালিকায় নাম তোলার জন্য অনুরোধ করেছেন মমতা। তার ভাষায়, একটু চেক করে নিন। ভোটার লিস্টে নামটা তুলে রাখবেন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহের সঙ্গে বৈঠকে পশ্চিমবঙ্গে এনআরসি নিয়ে কোনও কথা হয়নি। তার কথায়, আসামে এনআরসির জন্য কত মানুষ মারা গেছে। সেটি বলতেই তো দিল্লি গেলাম। বিষয়টি দেখে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। তাই বলে এলাম দিল্লি গিয়ে।

বিজনেস আওয়ার/২১ সেপ্টেম্বর, ২০১৯/এ

এই বিভাগের অন্যান্য খবর

সিঙ্গাপুরে করোনায় আক্রান্ত এক বাংলাদেশি
করোনা ভাইরাসে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৯১০

উপরে