businesshour24.com

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২১ জানুয়ারি ২০২০, ৮ মাঘ ১৪২৬


'আমরা নথিপত্র দেখে মামলা বিচার করি'

০৫:০৪পিএম, ০৫ ডিসেম্বর ২০১৯

বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদক : কে কী বলল সেটা দেখে বিচার করি না। আমরা নথিপত্র দেখে মামলা বিচার করি। খালেদা জিয়ার আইনজীবী জয়নুল আবেদীন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার 'তিনি রাজার হালে আছেন' বক্তব্যের প্রসঙ্গ টানলে এ মন্তব্য করেন প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন।

বৃহস্পতিবার (৫ ডিসেম্বর) সাড়ে ১১টায় প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বে আপিল বিভাগের ছয় বিচারপতির বেঞ্চ এজলাসে আসেন।

তখন জয়নুল আবেদীন ১২ ডিসেম্বর দিন ধার্য করার দিন এগিয়ে আনার আর্জি জানান। তার সঙ্গে অন্য আইনজীবীরাও দাবি জানালে প্রধান বিচারপতি বলেন, 'এটা নজিরবিহীন। আপনারা বাড়াবাড়ি করছেন। বাড়াবাড়ির একটা সীমা আছে।' তখন জয়নুল আবেদীন প্রধানমন্ত্রীর প্রসঙ্গ টানেন।

প্রধান বিচারপতি বলেন, যে জামিন পেয়েছেন সুপ্রিম কোর্ট থেকে পেয়েছেন। এখানে শক্তি দেখাচ্ছেন কেন?

এ পর্যায়ে খালেদার অপর আইনজীবী খন্দকার মাহবুব হোসেন তারিখ এগিয়ে আনার আর্জি জানান।

তখন প্রধান বিচারপতি বলেন, আমরা এ মামলা আর শুনব না। বেঞ্চ কর্মকর্তা মামলার কার্যতালিকা থেকে ৮ নম্বর ডাকেন।

খালেদার আইনজীবীরা আবারও বললে প্রধান বিচারপতি বলেন, আমরা আদেশ দিয়েছি। এখন আর শুনব না।

খালেদার আইনজীবী ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন বলেন, আপনারা অন্তত সোমবার দিন রাখুন। তিনি গুরুতর অসুস্থ। আপনারা সর্বোচ্চ আদালত দয়া করে আগের আদেশ রিভিউ করুন। না হলে অন্তত এখানে হাজির করার আদেশ দিন।

প্রধান বিচারপতি বলেন, আমরা সবাই মিলে এ আদেশ দিয়েছি। এরপর খালেদা জিয়ার পক্ষের জ্যেষ্ঠ আইনজীবীরা আদালত ছেড়ে চলে যেতে চাইলে জুনিয়র আইনজীবীরা বাধা দেন।

তখন কার্যতালিকার ৯ নম্বর ক্রমিকে থাকা মামলার আইনজীবী ব্যারিস্টার আজমালুল হোসেন কিউসি শুনানি শুরু করেন।

তিনি মামলার শুনানি করার এক পর্যায়ে আইনজীবীরা পেছন থেকে স্লোগান দেওয়া শুরু করেন। তারা নজিরবিহীনভাবে আদালতে 'উই ওয়ান্ট জাস্টিস' বলে স্লোগান দেন। এক আইনজীবী চিৎকার করে বলেন, 'আমাকে ফাঁসি দিন নেত্রীকে মুক্তি দিন।'

থেমে থেমে বিচার চলতে থাকলে খালেদার আইনজীবীরা হট্টগোল শুরু করেন। তারা স্লোগান দিলে প্রায় এক ঘণ্টা বিচার বন্ধ থাকে। প্রধান বিচারপতির নেতৃত্বে ছয় বিচারপতি নীরবে এজলাসে বসে থাকেন।

বেলা ১টা ১৫ মিনিটে প্রধান বিচারপতিসহ বিচারপতিরা এজলাস ছেড়ে গেলে এজলাস ফাঁকা হতে শুরু করে।

বিজনেস আওয়ার/০৫ ডিসেম্বর, ২০১৯/এ

এই বিভাগের অন্যান্য খবর

৫ জনকে হয়রানি না করার নির্দেশ
জামিন পেলেন প্রথম আলোর সম্পাদক

উপরে