businesshour24.com

ঢাকা, রবিবার, ২৬ জানুয়ারি ২০২০, ১৩ মাঘ ১৪২৬


শাকিবের ১০ লাখ টাকার ব্যাখ্যা দিলেন অপু

০৩:০৯পিএম, ১২ ডিসেম্বর ২০১৯

বিনোদন ডেস্ক : ডিভোসের্র পর শাকিব খান তার ছেলের কোনো দায়িত্ব নেয়নি, এমনকিতার কোনো খরচও দেন না। শুধু তাই নয়, ছেলে আব্রাহাম খান জয়কে যে ১০ লাখটাকা দেয়ার কথা শাকিব গণমাধ্যমকে বলেছেন সে বিষয়টিরও নতুন করে ব্যাখ্যা দিয়েছেনঅপু বিশ্বাস। সম্প্রতি এক অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন ঢালিউড কুইন।

অনুষ্ঠানে শাকিবের সঙ্গে বিচ্ছেদের পর ছেলের দায়িত্ব তারা কীভাবে ভাগাভাগি করছেন- জানতে চাইলে অপু বিশ্বাস বলেন, ‌ভাগাভাগির কিছু নেই। সব দায়িত্বই আমাকে পালন করতে হচ্ছে।এমনকি ছেলের সবরকম খরচও আমাকেই দিতে হচ্ছে। শাকিব আসলে ছেলের জন্য কোনো খরচ কখনোই দেয়নি।

ওর কাছ থেকে একটা প্রয়োজনে আমি ১০ লাখ টাকা নিয়েছিলাম। তখন স্বামী-স্ত্রী আমরা। পরে যখন জয় এলো তখন শাকিব ওই ১০ লাখ টাকা ছেলের খরচ হিসেবে দিয়েছে বলে দাবি করে। মানে সে বলে যে আমার আর তাকে ওই টাকাটা ফেরত দিতে হবে না। এটা সে ছেলের জন্য দিয়েছে। ওটাকেই সবাই প্রচার করেছে যে ছেলে-বউয়ের খরচ দিচ্ছে।

তিনি আরও বলেন, এ বিষয়ে আমিও কিছু বলিনি। কিন্তু সত্যটা হলো, ছেলে জন্মের পর ওর জন্য এক টাকাও সে নগদ দেয়নি। জয় জন্মের পর থেকেই আমাকে অনেক সংগ্রামের মুখে পড়তে হয়েছে। সাংবাদিক ও আমার পরিবার আমাকে মানসিক সমর্থনটা দিয়েছে। কিন্তু আর্থিক সাপোর্টটা আমি কোথাও থেকে পাইনি। নিজেকে জোগাড় করতে হয়েছে।

অপু বলেন, ছেলের জন্য আমি সব করতে পারি। ওকে তো মানুষ করতে হবে। শাকিবের অনিচ্ছায় আমি ছেলেকে পৃথিবীর মুখ দেখিয়েছি। ওর জন্য নিরাপদ জীবনের ব্যবস্থা আমাকেই করতে হবে। শাকিব মাসে-বছরে একদিন একটা গিফট দেয়, হঠাৎ একদিন দেখা করতে আসে আর সেগুলো দিয়ে সংবাদ প্রকাশ করায়। কিন্তু আমার দায়িত্ব প্রতিদিনের।

উল্লেখ্য, ভালোবেসে ২০০৮ সালে বিয়ে করেছিলেন শাকিব খান ও অপু বিশ্বাস। লোকচক্ষুর আড়ালে সেই সংসার টিকে ছিল ১০ বছর। বহু ঘটনা ও নাটকের জন্ম দিয়ে ২০১৮ সালে বিচ্ছেদ হয় ঢাকাই ছবির এই জনপ্রিয় জুটির। বাবা-মায়ের বিচ্ছেদের পর একমাত্র সন্তান তার মায়ের সঙ্গেই থাকছে।

বিজনেস আওয়ার/১২ ডিসেম্বর, ২০১৯/এ

এই বিভাগের অন্যান্য খবর

উপরে