বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদকঃ কাপ্তাইয়ের কর্ণফুলী পানি বিদ্যুৎ কেন্দ্রের প্রধান বাঁধ সংলগ্ন খালি জায়গায় গড়ে তোলা হয়েছে সৌরবিদ্যুৎ কেন্দ্র। বুধবার ১১ আগস্ট ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা প্রকল্পটি উদ্বোধন করবেন বলে জানিয়েছেন রাঙ্গামাটি জেলা প্রশাসন ও কর্ণফুলী জল বিদ্যুৎ কেন্দ্র। উদ্বোধনের পর এই কেন্দ্র থেকে জাতীয় গ্রিডে বিদ্যুৎ সরবরাহ শুরু হবে। কর্ণফুলী জলবিদ্যুৎ কেন্দ্রের ম্যানেজার এটিএম আব্দুরজ্জাহের এসব তথ্য জানান।

২০২০ সালের মধ্যে বিদ্যুতের মোট উৎপাদনের ১০ভাগ নবায়নযোগ্য শক্তি থেকে উৎপাদনের লক্ষ্য নির্ধারণ করা হয়েছে। সেই লক্ষেই রাঙ্গামাটির কাপ্তাইয়ে ২৩ একর জায়গার ওপর ৭.৪ মেগাওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন ক্ষমতাসম্পন্ন একটি সৌর বিদ্যুৎ কেন্দ্র স্থাপন করা হয়েছে।

কর্ণফুলী জল বিদ্যুৎ কেন্দ্রের ব্যবস্থাপক এটিএম আব্দুজ্জাহের জানান, 'নবায়নযোগ্য জ্বালানির দিকে ঝুঁকছে বিশ্ব। তার সাথে তাল মিলিয়ে এগিয়ে যাচ্ছে বাংলাদেশ। এরই ধারাবাহিকতায় রাঙ্গামাটির কাপ্তাইয়ে সৌরশক্তির সাহায্যে সরকারি ভাবে দেশের প্রথম সোলার বিদ্যুৎকেন্দ্র নির্মাণ করা হয়েছে।'

সৌর বিদ্যুৎ প্রকল্পটিরা কাজ শুরু হয় ২০১৭ সালের ৯ জুলাই। বর্তমানে পরীক্ষামূলকভাবে বিদ্যুৎ উৎপাদন চলছে। এ প্রকল্পের প্রতি কিলোওয়াট বিদ্যুৎ উৎপাদন ব্যয় ধরা হয়েছে ৫ টাকা ৪৮ পয়সা। প্রায় দু’বছর কাজ শেষে পরীক্ষামূলকভাবে বিদ্যুৎ উৎপাদন শুরু হয়। প্রধানমন্ত্রীর উদ্বোধনের পরপরই জাতীয় গ্রিডে বিদ্যুৎ সরবরাহ করা হবে।

প্রসঙ্গত, চীনের ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান জেটটি করপোরেশন এ পাওয়ার প্লান্টটি বানিয়েছে। দেশের প্রথম এই সৌর বিদ্যুৎ প্রকল্পে ২৪ হাজার ১২টি প্যানেল রয়েছে । ১১০ কোটি টাকা ব্যয়ে ৭.৪ মেগাওয়াট ক্ষমতাসম্পন্ন এই প্রকল্পে অর্থ সহায়তা দিচ্ছে এডিবি। একইভাবে নবায়নযোগ্য বিদ্যুৎ উৎপাদনে এডিবি ৫০ মেগাওয়াট ক্ষমতাসম্পন্ন কাপ্তাই হ্রদে আরও একটি প্রকল্প হাতে নিয়েছে।

বিজনেস আওয়ার/১১ সেপ্টেম্বর,২০১৯/ আরআই