বিজনেস আওয়ার প্রতিবেদক : চীনে থেকে ফিরতে আগ্রহী বাংলাদেশিদের দেশে আনার জন্য বেইজিংকে চিঠি দিয়েছে ঢাকা। আগ্রহী বাংলাদেশি নাগরিকদের ফিরিয়ে আনতে প্রয়োজনীয় বাকি ব্যবস্থাও নিয়েছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। এদিকে উহানে থাকা বিদেশি নাগরিকদের আগামী দুই সপ্তাহের মধ্যে ছাড়বে না চীন। পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সূত্র এ তথ্য জানা গেছে।

এদিকে সোমবার (২৭ জানুয়ারি) চীনের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, করোনা ভাইরাস আক্রান্ত এলাকা উহান থেকে আগামী দুই সপ্তাহ কোনো বিদেশি নাগরিককে ছাড়বে না দেশটি। একইসঙ্গে সেখানে কোনো বিদেশিকে যেতেও দেওয়া হবে না। ভাইরাস প্রতিরোধ করার লক্ষ্যেই এই ব্যবস্থা নিয়েছে দেশটি।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সূত্র আরও জানায়, চীনে কোনো প্রবাসী বাংলাদেশি এখনো ভাইরাসে আক্রান্ত হয়নি। চীনের উহানে ৩ থেকে ৪শ' বাংলাদেশি রয়েছেন। বেইজিংয়ের বাংলাদেশ দূতাবাস প্রতিনিয়ত তাদের খোঁজ খবর রাখছে। চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তথ্য অনুযায়ীও এখনো কোনো বাংলাদেশি করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়নি। এছাড়া বাংলাদেশ দূতাবাস থেকে একটি হটলাইন খোলা হয়েছে। এই হটলাইন নম্বর (৮৬ )-১৭৮০১১১৬০০৫।

পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম বলেন, বাংলাদেশিদের ফিরিয়ে আনার জন্য এরই মধ্যে চীন সরকারকে চিঠি দেওয়া হয়েছে। চীনের পক্ষ থেকে এখনো কিছু জানানো হয়নি। তবে সেখান থেকে বাংলাদেশিদের ফিরিয়ে আনা সংক্রান্ত সব প্রস্তুতিমূলক ব্যবস্থা নিয়ে রেখেছে ঢাকা। যাদের ফিরিয়ে আনা হবে, তাদের দেশে আনার পর বিশেষ পর্যবেক্ষণে রাখা হবে। পরিস্থিতির ভয়াবহতা বিবেচনায় সতর্কতা জারির ব্যবস্থা নেবে সরকার।

মঙ্গলবার (২৮ জানুয়ারি) করোনাভাইরাস ইস্যুতে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে একটি আন্তঃমন্ত্রণালয় বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে। বৈঠকে স্বাস্থ্য, বাণিজ্য, বিমানসহ সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধিরা অংশ নেবেন। ওই বৈঠক থেকেই সতর্কতা জারি বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

বিজনেস আওয়ার/২৮ জানুয়ারি, ২০২০/এ